সমাজচিন্তা

বেয়াদবকাহিনী

ইবাদ বিন সিদ্দিক

বেয়াদব বয়স’র সাথে চুক্তিবদ্ধ না। যার আদব নাই সেই বেয়াদব। বয়স কম-বেশি’র কোনো এগ্রিমেন্ট নেই। ছোটরা তো করবেই; বড়রাও করে। এমন নজির বেশ দৃষ্টিগোচর হচ্ছে। ভদ্রতা, অধৃষ্টতা ও শিষ্টতা যার মধ্যে নেই সেই বেয়াদব। সাচ্চা বেয়াদব।

সিমপ্যাথিহীন সমাজের অকুণ্ঠ এটেসটেইশন পাওয়া বড়রাই সবচেয়ে বড় বেয়াদব। তারা প্রতিনিয়ত ছোটদের একান্ত ব্যাক্তিস্বাধীনতায় হস্তক্ষেপ করে। আত্মসন্মানবোধে আঘাত করে। সেলফরেসপেক্ট বলতে কিচ্ছু বোঝে না। বাম হাত ঢুকায়। আত্মনিয়ন্ত্রনের অধিকার কেড়ে নেয়। এরা দিনকে দিন, রাতকে রাত বেয়াদবী করছে।

আমি সকলের বন্ধু হতে চাই। কারো চোখগরম করা বড় ভাই অথবা বাধ্যগত ছোট ভাই হতে চাই না। মন চায় না। সায় দেয় না। এরচে’ বেশি বোঝলে দূরে যান। কমপক্ষে একশো হাত। আপনার অ্যানিমাই নিয়া আপনে থাকেন। যন্ত্রণা দিয়েন না।

Leave a Reply